Uncategorized

গাড়ির যত্ন কিভাবে নিবেন ?

গাড়ির যত্ন কিভাবে নিবেন?

গাড়ির যত্ন নিতে আমরা প্রত্যেকেই চাই। আমরা সকলেই চাই আমাদের সখের গাড়িটি যাতে ভালো থাকে । আমরা মানুষ যেমন নিজের যত্ন নিই ঠিক একইভাবে গাড়ির যত্ন নেয়া উচিত তাহলে গাড়ির পারফরমেন্স ভালো থাকবে এবং গাড়িটি দীর্ঘস্থায়ী হবে।

কি কি কাজ করলে গাড়ি ভালো থাকবে-

১। নিয়মিত গাড়ির চেক আপ করানো অর্থাৎ ইঞ্জিন ,গিয়ার,ব্রেক এবং স্টিয়ারিং অয়েল , ব্রেক প্যাড ইত্যাদি এসবকিছু সময় মত চেক করে নিতে হবে প্রয়োজনে চেঞ্জ করতে হবে।অল্প কিছু টাকা বাচানোর জন্য নকল পন্য ব্যবহার না করাই ভালো।

২। সকাল সকাল গাড়ি স্ট্যার্ট দেয়ার সাথে সাথে গাড়ি চালানো উচিত না বরং গাড়ি স্ট্যার্ট দিয়ে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে গাড়ির ইঞ্জিন হিট করা প্রয়োজন । একটি উদাহরন দিয়ে বোঝানোর চেষ্টা করি , ধরুন আপনি সকালে ঘুম থেকে উঠলেন এখন কেও যদি আপনাকে বলে দোড় দিয়ে ৪/৫ কিঃ মিঃ হাটার জন্য আপনি পারবেন??

ঠিক তেমনি গাড়ির ক্ষেত্রেও একই আপনার গাড়ি সারারাত রেস্টে থাকার পর সকালে তাকে সেট হবার জন্য একটু সময় দিন । তাই সকালে গাড়ি চালানোর পূর্বে কমপক্ষে ৫-১০ মিনিট স্ট্যার্ট দিয়ে রাখুন । শীতকালে অবশ্যই এটি করা উচিত ।অনেক সময় দেখা যায় কম তাপমাত্রার কারণে গাড়ি স্ট্যার্ট হচ্ছেনা ,এটি হতে পারে গাড়ির সেলফ স্টার্টার ঠান্ডায় বসে গিয়েছে । তখন ছোটো কোনো ভারী কিছু দিয়ে হাল্কা বাড়ি দিলে সমস্যা সমাধান হতে পারে।তবে আপডেট গাড়িগুলোতে সেলফ স্টার্টার থাকেনা।

৩। ভাঙ্গা রাস্তায় খুব ধিরে এবং দেখে গাড়ি চালাবেন। প্রথমে লক্ষ্য করবেন কোনদিকে ভাঙ্গা কম আছে ,তারপর সেদিকে আস্তে আস্তে যাবেন। ভাঙ্গা রাস্তায় স্পিডে গাড়ি চাকাবেন না ।এতে গাড়ির সাসপেনশন,এক্সেল, রেক, সিভি জয়েন্ট ইত্যাদি খারাপ হয়ে যেতে পারে ফলে আপনার গাড়ির পারফরমেন্স কমে যাবে ।

৪। মাসে অন্ত্যত একবার গাড়িকে ডিপলি ওয়াশ করুন এতে গাড়ির চ্যাসিসে জমে থাকা ধুলোবালি পরিষ্কার হবে। অনেক সময় দেখা যায় গাড়িতে মরিচা পড়ে যায় দীর্ঘদিন ওয়াশ না করার ফলে। তাই গাড়ির বাহিরে ভিতরে ভালো করে পরিষ্কার রাখুন।

৫। গাড়িতে সর্বদা গ্লাস বন্ধ রাখার চেষ্টা করবেন এতে গাড়ির ইন্টেরিয়র ফ্রেশ এবং ভালো থাকবেন। কারন গাড়িতে একবার ধুলো প্রবেশ করলে তা আপনি যতই পরিষ্কার করুন তা  আর কখনোও ঠিক আগের মতন পরিষ্কার হবে না ।

৬। গাড়ির ইন্টেরিয়র পরিষ্কার করতে ভ্যাকুম ক্লিনার ব্যবহার করুন।

৭। গাড়িকে ক্লিন করার জন্য মাইক্রোফাইবার টাওয়াল ব্যবহার করুন যাতে গাড়িতে স্ক্র্যাচ না পড়ে ।

৮। গাড়িকে অতিরিক্ত রোদে রাখবেন না। অনেকসময় গাড়ির ড্যাশবোর্ড ফুলে ফুলে একসময় ইন্টেরিয়র লেদারগুলো উঠে যেতে পারে।

 ৯। ইলেক্ট্রিক লাইন / পিলার / উচু গাছের নিচে গাড়ি পারকিং করবেন না।দূর্ঘটণাবশত এসব ভেঙ্গে পড়লে আপনিও দূর্ঘটনার শিকার হতে পারেন।

১০। হটাৎ করে স্পিড বা ঘন ঘন ব্রেক করা থেকে বিরত থাকুন।

১১। গাড়িতে অতিরিক্ত ভার বহন করা থেকে বিরত থাকুন।

১২। যদি সম্ভব হয় নিজেই গাড়ি ড্রাইভ করুন ।কারন আপনার গাড়ি, আপনার সম্পদ এটি অন্য কেও আপনার মত যত্ন নিবে না ।

১৩। গাড়িরও ঠিক  মানুষের রেস্টের প্রয়োজন হয় তাই গাড়িকেও কিছুটা রেস্ট দেয়া ভালো।

আমাদের উচিত নিজ নিজ গাড়ির প্রতি সচেতন থাকা কারণ আপনি যদি এই সব কিছু মেনে চলেন তাহলে আপনার গাড়িটি সর্বদা ভালো পারফরমেন্স দিবে এতে আপনিও চালিয়ে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করবেন।

গাড়ির যত্ন কিভাবে নিবেন?

ধন্যবাদ

কার’স ফিড বিডি ও হটশট অটোমোটিভের সাথেই থাকুন

“মনে রাখবেন,সময়ের চেয়ে জীবনের মূল্য বেশি তাই

সাবধানে গাড়ি চালাবেন ভালো থাকবেন”

Back to list

Leave a Reply