Uncategorized

গাড়ি নিরাপদ রাখার উপায়

১- ইঞ্জিন ওয়েল – তিন মাস পরপর ইঞ্জিন ওয়েল পরিবর্তন করুন। একটু বেশি খরচ হলেও, ভালো ব্রান্ডের ইঞ্জিন ওয়েল ব্যবহার করা উচিৎ। এতে আপনার গাড়ির পার্ফরমেন্স ভালো থাকবে এবং গাড়ি দীর্ঘস্থায়ী হবে। অল্প কিছু টাকা বাঁচাতে গিয়ে গাড়ির ইঞ্জিনের কোনও ক্ষতি করবেন না।

২- ওয়েল ফিল্টার – ইঞ্জিন ওয়েলের পাশাপাশি ভালো ব্রান্ডের অয়েল ফিল্টার ও ব্যবহার করা উচিৎ

৩- কেবিন ফিল্টার এবং এসি ফিল্টার – এই দুইটা খুবই প্রয়োজনীয় জিনিস!  সপ্তাহে অন্তত একবার ফিল্টারগুলো খুলে ঝাড়া দিয়ে পরিষ্কার করা উচিৎ এবং ইঞ্জিন ওয়েলের পাশাপাশি ৩-৪ মাস পরপর ফিল্টারগুলোও চেঞ্জ করে ফেলতে হবে।

৪- ইঞ্জিন কুলেন্ট –

অনেকেই এটাকে রেডিয়েটারের পানি বলে থাকে। বাংলাদেশের অনেক মানুষ রেডিয়েটরে সাধারণ পানি ব্যবহার করে! যেইটা কখনোই ব্যবহার করা উচিৎ না। রেডিয়েটরের জন্য নির্ধারিত কুল্যান্ট ব্যবহার করুন।

৫- ব্রেক প্যাড- বছরে অন্তত দুইবার ব্রেক প্যাড এর কন্ডিশন কেমন চেক করুন। একজোড়া ব্রেক প্যাড এক-দেড়বছর ভালোভাবে সার্ভিস দেয়। চেঞ্জ করার সময় হলে ব্রেক প্যাড চেঞ্জ করুন এবং ভালোমানের ব্রেক প্যাড ব্যবহার করুন।

এইগুলার পাশাপাশি নিয়মিত গাড়ি পরিষ্কার করুন। ভালো পাম্পের তেল ব্যবহার করুন। গাড়ির উপর অতিরিক্ত চাপ প্রয়োগ করবেন না। এইসব নিয়মগুলো ঠিকমতো পালন করলে, আপনার গাড়ি থেকে দীর্ঘস্থায়ী একটা ভালো সার্ভিস পাবেন।

Back to list

Leave a Reply